জেএসসিতে এবারও অটোপাস

চলতি বছরের অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষা নেওয়া সম্ভব হবে না। অ্যাসাইনমেন্ট মূল্যায়ন করেও ফল প্রকাশ করাও বাস্তবসম্মত নয়।  তাই বাধ্য হয়েই এই পরীক্ষার্থীদের অটোপাস দেওয়া হবে।

পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে এ দুই পরীক্ষা নেওয়া হবে বলে সরকারের পক্ষ থেকে বারবার বলা হলেও শিক্ষা বোর্ডগুলো জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) ও জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষার প্রস্তুতিই নেয়নি। এই পরীক্ষার্থীদের অটোপাস দেওয়ার পরিকল্পনা আছে বলে দৈনিক আমাদের বার্তাকে জানিয়েছে একাধিক সূত্র।

গতকাল রোববার দুপুরে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনির সভাপতিত্বে এক আন্তঃমন্ত্রণালয় সভায় ১২ সেপ্টেম্বর থেকে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ক্লাস শুরুর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

সভা শেষে ব্রিফিংয়ে শিক্ষামন্ত্রী জানান, চলতি বছরের জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষার সার্বিক প্রস্তুতি নেওয়া হবে। যদি মনে হয় পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়েছে তাহলে পরীক্ষাগুলো নেওয়া হবে। 

কিন্তু শিক্ষা বোর্ডগুলোতে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার তেমন কোন প্রস্তুতিই নেওয়া হয়নি। এসব পরীক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশন হলেও ফরম পূরণ হয়নি। এ পরীক্ষার জন্য কোন প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছে না বলে জানা গেছে।

জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার্থীদের প্রশ্ন তৈরির বিষয়েও কোন প্রস্তুতি হয়নি। এখন সেপ্টেম্বর চলছে। নভেম্বরে এসএসসি ও ডিসেম্বরে এইচএসসি পরীক্ষার প্রশ্ন ছাপা হয়েছে। কিন্তু জেএসসি ও জেডিসির ফরমই পূরণ করার উদ্যোগ নেই। প্রশ্ন ছাপা তো আরেক ধাপ পরের কথা।   

গত বছরও জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষা হয়নি। তবে শিক্ষার্থীদের তথ্য নিয়ে তাদের সনদ দেওয়া হয়েছে। সেভাবেই এবারও জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষার্থীদের সনদ দেওয়ার পরিকল্পনা করা হয়েছে বলে বোর্ড সূত্রে জানা গেছে। 

নাম প্রকাশে অনিচছুক একটি শিক্ষাবোর্ডের চেয়ারম্যান দৈনিক আমাদের বার্তাকে বলেছেন, ‘জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষা নেওয়া সম্ভব হবে না। এখন এর চেয়ে বেশি কিছু বলা যাবে না। ’

Leave a Reply

Your email address will not be published.